নিদাহাস ট্রফির ফাইনালে খেলতে চান ওয়ালশ

শ্রীলঙ্কার মাটিতে ভারতকে নিয়ে আসন্ন ত্রিদেশীয় নিদাহাস ট্রফি টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনালে খেলতে চান বাংলাদেশ দলের ভারপ্রাপ্ত কোচ কোর্টনি ওয়ালশ। আজ দুপুরে মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ওয়ালশ বলেন, ‘আমরা ধারাবাহিকভাবে ভালো ক্রিকেট খেলতে চাই। কোন নির্দিষ্ট লক্ষ্য ও পরিকল্পনা না করে ম্যাচ বাই ম্যাচ খেলতে চাই আমরা। আমাদের প্রাথমিক লক্ষ্য যত বেশি সম্ভব ম্যাচ জয় করা এবং ফাইনাল খেলা। যদি কয়েকটি ম্যাচ জিতে ফাইনালে যেতে পারি তবে সেটি হবে অনেক বড় পাওয়া। আমি বিশ্বাস করি আমরা পারবো।’
গেলো জানুয়ারি ও ফেব্রুয়ারিতে দেশের মাটিতে ত্রিদেশীয় সিরিজ, টেস্ট ও টি-২০ সিরিজে ভালো ফল করতে পারেনি বাংলাদেশ। তবে নিদাহাস ট্রফিতে দল ঘুড়ে দাড়াতে চায়। এজন্য দলের বোলিং কোচ ওয়েস্ট ইন্ডিজের ওয়ালশকে কোচের দায়িত্ব দিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। দায়িত্ব পেয়ে দলকে ভালো পর্যায়ে নিয়ে যাবার ব্যাপারে আশাবাদী ওয়ালশ। আসন্ন সিরিজে দল ভালো করবে বলে মনে করেন ওয়ালশ, ‘আমরা আন্ডারডগ হিসেবে যাচ্ছি। ভালোমানের দু’টি দলের বিপক্ষে আমাদের খেলতে হবে। আমি মনে করি, আমাদের ভালো সুযোগ রয়েছে। আমরা যদি ধারাবাহিকভাবে ভালো খেলতে পারি তবে আমরাও ফাইনালে উঠতে পারবো। আশা করছি ভালো কিছু করতে পারবো এবং ভালো ক্রিকেট খেলতে পারবো।’
শ্রীলঙ্কা ও ভারতের মতো শক্তিশালী দলের বিপক্ষে নিদাহাস ট্রফিতে খেলতে হবে বাংলাদেশকে। তাই চাপ অনুভব না করে আসন্ন টুর্নামেন্ট উপভোগের জন্য দলের খেলোয়াড়দের বলেছেন ওয়ালশ, ‘আমি দলের সকলকে বলেছি, প্রত্যেকটি ম্যাচ উপভোগ করার জন্য। মাঠে যত বেশি ভালো ক্রিকেট তারা খেলতে পারবে ততো বেশি সাফল্য দল পাবে। এরজন্য বাড়তি কোন চাপ নেয়ার প্রয়োজন নেই। সবাইকে টুর্নামেন্ট উপভোগ করার জন্য বলেছি। খেলোয়াড়রা নিজেদের সেরাটাই দিতে পারলে সবকিছু সম্ভব।’
স্বাধীনতার ৭০ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে ঘরের মাঠে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ আয়োজন করছে শ্রীলঙ্কা। আগামী ৬ মার্চ শ্রীলঙ্কা-ভারত ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে ত্রিদেশীয় সিরিজ। ৮ মার্চ ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে নিজেদের মিশন শুরু করবে বাংলাদেশ। ফাইনাল হবে ১৮ মার্চ। ফাইনালের আগে ডাবল লিগ পদ্ধতিতে চারটি করে ম্যাচ খেলবে শ্রীলঙ্কা, ভারত ও বাংলাদেশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *